স্টিভের স্বপ্নের স্পেস স্টেশন ক্যাম্পাস

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

অ্যাপলের জন্য মহাকাশযান-সদৃশ একটি কার্যালয় তৈরির স্বপ্ন দেখেছিলেন স্টিভ জবস। সেই স্বপ্ন পূরণ হয়েছে। বুধবার এক বিবৃতিতে অ্যাপল কর্তৃপক্ষ বলেছে, অ্যাপল-কর্মীরা যুক্তরাষ্ট্রের সিলিকন ভ্যালিতে অবস্থিত নতুন ‘স্পেসশিপ’ কার্যালয়ে এপ্রিল মাস থেকে যেতে শুরু করবেন। ১২ হাজারের বেশি কর্মীকে এই নতুন কার্যালয়ে নিতে এ বছরের প্রায় শেষ পর্যন্ত সময় লাগবে। নতুন এই ক্যাম্পাসটিকে ‘সৃজনশীলতা ও সহযোগিতা কেন্দ্র’ বলে উল্লেখ করেছে অ্যাপল কর্তৃপক্ষ। ক্যালিফোর্নিয়ায় স্পেসশিপ ক্যাম্পাস অর্থাৎ অ্যাপলের প্রধান কার্যালয়ের নির্মাণের কাজ দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলছে। অ্যাপলের সহপ্রতিষ্ঠাতা স্টিভ জবস তার সর্বশেষ কাজ হিসেবে প্রতিষ্ঠানটির জন্য একটি ক্যাম্পাস তৈরি করতে চেয়েছিলেন। শেষ ২০১১ সালে জনসমক্ষে এসেছিলেন অ্যাপলের প্রতিষ্ঠাতা স্টিভ জবস। আর সেবারই সবার সামনে তুলে ধরেছিলেন অ্যাপলের জন্য তার স্বপ্নের অফিস তৈরির পরিকল্পনা। এটিই সেই ‘স্পেসশিপ ক্যাম্পাস’ হিসেবে পরিচিতি পেয়েছে। প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে জানানো হয়, এপ্রিলেই তারা খুলে দিতে যাচ্ছে অ্যাপল প্রতিষ্ঠাতার স্বপ্নের সেই স্পেস স্টেশন। পুরনো ক্যাম্পাস থেকে ধীরে ধীরে তাদের কর্মীদের চলে যেতে হবে ২ দশমিক ৯ মিলিয়ন বর্গফুটের নতুন ক্যাম্পাসে।
স্টিভের পরিকল্পনা অনুসারে ইতিমধ্যেই এর নির্মাণ কাজ শেষ করেছে অ্যাপল। সেখানে স্টিভ জবসের স্মরণে ১ হাজার আসনের একটি অডিটোরিয়ামও বানিয়েছে তারা। ধারণা করা হচ্ছে, ক্যাম্পাসটি বানাতে তাদের খরচ পড়েছে প্রায় ৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। তবে এ ব্যাপারে বিস্তারিত কিছু জানায়নি প্রতিষ্ঠানটি। ২০১১ সালে ক্যালিফোর্নিয়ার যে অনুষ্ঠানে জবস শেষবারের মতো জনসমক্ষে এসেছিলেন, সেখানে তিনি জানান- পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ অফিস ভবন নির্মাণ করতে চান তিনি। তার ইচ্ছা ছিল স্থাপত্যবিদ্যা নিয়ে যারা পড়াশোনা করছে, তারাও যেন ভবনটা দেখতে আসে। এর বাইরের দেয়াটি তৈরি হয়েছে পৃথিবীর দীর্ঘতম কার্ভাড গ্লাস দিয়ে।

ছবি ও তথ্যঃ ইন্টারনেট।

প্রাণের বাংলায় প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। লেখা সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় প্রাণের বাংলা বহন করবে না। প্রাণের বাংলার কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না তবে সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করতে পারবেন । লেখা সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ অথবা নতুন লেখা পাঠাতে যোগাযোগ করুন amar@pranerbangla.com