সিংহবাহিনীর মুখোমুখি ব্যাঘ্র বাহিনী

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আহসান শামীমঃশুক্রবার রনগিরি ডাম্বুলা স্টেডিয়ামে এসে সবার আগে উইকেট দেখতে যান মাশরাফি ও প্রধান কোচ চন্দিকা হাথুরুসিংহে। সেখানে আগে থেকেই ছিলেন ব্যাটিং কোচ থিলান সামারাবিরা। তারা আলোচনা করেন লম্বা সময় ধরে।সবার তুমুল আগ্রহ উইকেট নিয়ে। চট দিয়ে ঢাকা উইকেটে কী রহস্য জানতে উন্মুখ ছিলেন পেসার মুস্তাফিজও। এই তরুণ পেসার মাঠে নামার সময় সংবাদ সম্মেলনে যেতে মাঠ ছাড়ছিলেন মাশরাফি।আজ শনিবার  বাংলাদেশ বনাম শ্রীলংকার ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে। অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজার বিশ্বাস প্রথম ওয়ানডের উইকেট থাকবে মুস্তাফিজের অনুকূলে।

আজ শনিবার ডাম্বুলায় বাংলাদেশ সময় বিকেল ৩টায় শুরু হবে ম্যাচটা । এর আগে ২০১৩ সালের সফরে পাল্লেকেলেতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে জেতার এই দ্বীপদেশটার কাছে টানা পাঁচ ওয়ানডেতে হেরেছে বাংলাদেশ। ২০১০ সালে ডাম্বুলায় এশিয়া কাপের তিনটা ম্যাচ খেলেছিল বাংলাদেশ।

মাশরাফি তার তরুণ সতীর্থকে বলেছেন, “মুস্তাফিজ, এটা তোর উইকেট, উড়িয়ে দিবি।” মুস্তাফিজ নিজেও মনে করেন রনগিরি ডাঙ্গলার উইকেট তার মনের মত । জয়ের জন্য এই কার্টার মাষ্টার নিজের সর্বোচ্চটা দেওয়ার ঘোষনা দিয়েছেন । গণমাধ্যমের সাথে কথা বলতে গিয়ে টাইগার অধিনায়ক সোজাসাপ্টা জানালেন , শনিবারের ম্যাচে টস হবে ম্যাচের টার্নিং পয়েন্ট । পীচ দেখার পর সংবাদ সম্মেলনে মাশরাফি বলেছেন, ‘দেখে বেশ ভালো মনে হচ্ছে।  কিন্তু পরে কেমন হবে, সেটা ধারণা করা কঠিন।  আমাদের মানসিকভাবে সব কিছুর জন্যই প্রস্তুত থাকতে হবে।  সত্যিকার অর্থে, দেখে ব্যাটিং উইকেট মনে হচ্ছে।  দ্বিতীয় ইনিংসে কী হবে বা প্রথম ইনিংসে পেসাররা সুবিধা পাবে কিনা, সেটা বলা কঠিন। ’

পেসারদের জন্য তৈরি এমন উইকেটে বাংলাদেশকেই ফেভারিট ভাবছেন শ্রীলংকার গণমাধ্যম । মুস্তাফিজকে সামলানোর জন্য প্রস্তুতি নেওয়ার কথা বললেও শ্রীলংকা দলকে ভাবাচ্ছে পিচ। শ্রীলঙ্কার চিন্তিত হওয়ার আরো কিছু কারণ আছে। ইনজুরি কারনে  ওয়ানডের দুই প্রধান অস্ত্র অ্যাঞ্জেলো মাথুজ আর লাসিথ মালিঙ্গাকে পাচ্ছে না তারা। রঙ্গনা হেরাথ না থাকায় শ্রীলঙ্কার হয়ে অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করবেন উপুল থারাঙ্গা। থারাঙ্গা এর আগেও অধিনায়কত্ব করেছেন। তার অধীনে সাউথ আফ্রিকার বিপক্ষে ০-৫ ব্যবধানে হেরেছিল দলটা । এরপর অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে একটা  টি-টুয়েন্টি সিরিজে থারাঙ্গার অধীনে জয় পায় তারা।

আজ যদি তামিম ইকবাল অন্তত রানের খাতা খুলতে পারেন তাহলেই প্রবেশ করবেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে প্রথম বাংলাদেশী হিসেবে ১০ হাজারীদের ক্লাবে। তামিম ইকবাল এখন পর্যন্ত ৪৯ টা টেস্ট ম্যাচে ৯৪ ইনিংসে ব্যাট করে ৩৯.৫৩ গড়ে রান করেছেন ৩৬৭৭।  সর্বোচ্চ ২০৬ রান।  টেষ্ট ক্রিকেটে ৮ টা শতক আর ২২ টা অর্ধশতক ।এদিকে ১৬২ ওয়ানডেতে তামিমের সংগ্রহ ৩২.৪০ গড়ে ৫১২০ রান।  ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ১৫৪ রান।  ওয়ানডে ক্রিকেটে তার সেঞ্চুরির সংখ্যা ৭টা আর হাফ সেঞ্চুরি রয়েছে ৩৪টা । তামিম টি-২০তে বাংলাদেশের হয়ে ৫৫ বার ব্যাট হাতে মাঠে নেমেছেন।  ২৪.০৪ গড়ে করেছেন ১২০২ রান।  সেঞ্চুরির সংখ্যা ১টা, হাফ সেঞ্চুরি করেছেন ৪টা,  ক্যারিয়ার সর্বোচ্চ অপরাজিত ১০৩ রান।

ছবিঃ গুগল

 

প্রাণের বাংলায় প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। লেখা সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় প্রাণের বাংলা বহন করবে না। প্রাণের বাংলার কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না তবে সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করতে পারবেন । লেখা সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ অথবা নতুন লেখা পাঠাতে যোগাযোগ করুন amar@pranerbangla.com