মধুর বসন্ত এসেছে

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আজ সারাদিন হয়তো বেশ উল্টোপাল্টা হাওয়া দিয়েছে, উদ্যানে ফুল ফুটেছে, তরুণীরা ঝলমলে পোশাক আর গহনায় নিজেদের সাজিয়ে ঘর থেকে বাইরে বের হয়েছে, শহরের ধূলায় ঝরেছে শুকনো পত্রালী।এই কাজের শহরে, ব্যাস্ত আর উদভ্রান্ত শহরে ফাল্গুন এসেছে।

ফাল্গুন মানে তো ভালোবাসার সময়, প্রজাপতির ডানা মেলার কাল।প্রকৃতির দখিনের দুয়ার খুলে গেলো আজ। কাল যা ছিল শীতের মৌনতায় নিথর আজ পলকে বসন্তের প্রথম স্পর্শে জেগে উঠেছে যেন সরব হয়ে। বাঙালীর মনে আজ হাওয়া জাগিয়ে তুলবে নতুন প্রাণের স্পর্শ। ফাল্গুন এলেই মনে পড়ে যায় রবীন্দ্রনাথের সেই পরিচিত গান ‘আহা আজি এ বসন্তে, এত ফুল ফোটে, এত বাঁশি বাজে, এত পাখি গায়…।’

শীতে জীর্ণ হয়ে থাকা প্রকৃতি যেন আড়মোড়া ভেঙে নতুনভাবে জেগে উঠতে শুরু করেছে। প্রকৃতির সাজসাজ রব সর্বত্র জানান দিচ্ছে বসন্তের আগমনী বার্তা। বসন্তের ছোঁয়ায় প্রকৃতির সঙ্গে সঙ্গে মাতাল হাওয়ার স্পর্শ টের পাওয়া যাচ্ছে মানুষ, পাখি বা প্রাণীকূলে। প্রকৃত অর্থে বসন্তের আগমন নিয়ে আসে আবেগঘন, বর্ণিল আনন্দ বার্তা।

শহরে কোকিলের ডাক সবাই শুনতে পায় না। ফুলের দিকে তাকানোর সময়ই বা কোথায় মানুষের? কিন্তু দিনপঞ্জির পাতা দেখেই বাসন্তী শাড়িতে তরুণীরা বেরিয়ে পড়েন উৎসবে। তারাই যেন আমাদের নগরজীবনের বসন্ত-দূত। আর এই বসন্ত-দূতদের দেখা পাওয়া যায় সবচেয়ে বেশি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রাঙ্গণে, চারুকলার বকুলতলা আর বইমেলা তো বটেই। তবে আজকাল ব্যস্ত অফিসে, রাস্তায়ও দেখা মিলছে বাসন্তী পোশাকে বসন্ত বরণ করে নিতে বেরোনো তরুণীদের। পয়লা ফাল্গুনে বসন্ত বরণ করে নেয়ার রীতি পালন করছেন সবাই। জানান দিচ্ছেন, ‘মধুর বসন্ত এসেছে’ শহরে।

বসন্তের এই ডাক প্রেমিক হৃদয়েও জাগিয়ে তোলে ভালোবাসার আকাঙ্খা। প্রিয় মানুষের হাত ধরে বসে থাকার আর্তি। বসন্তের পাগল করা হাওয়ায় প্রেম গড়ে আ্বার প্রেম ভাঙ্গেও। কিন্তু ভাঙ্গার বিষন্ন সঙ্গীত বসন্তের উজ্জল শরীরকে একবিন্দু ম্লান করতে পারে না। আমাদের এই শহুরে জীবনে আছে অনেক মালিন্য, আছে ক্লান্তি, আছে নানা সংকটে জর্জরিত জীবন। কিন্তু সে জীবনের ওপর ফাগুন যেন মুহূর্তের জন্য হলেও বুলিয়ে দিয়ে যায় অন্য এক হাওয়া। পথে হেঁটে যেতে যেতে সদাব্যস্ত মানুষটিও তাকান ফুলের দিকে, কান পেতে হয়তো শুনতে চান কোকিলের সেই ডাক। মনের ভেতরে টেনে আনেন সুখস্মৃতি।

আজ তেমনই একটি দিন। ফাগুন প্রতিবারই আমাদের নাগরিক জীবনের কঠিন ঘেরাটোপের মধ্যে বইয়ে দেয় পাগল হাওয়া।

প্রাণের বাংলা প্রতিবেদক

 

প্রাণের বাংলায় প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। লেখা সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় প্রাণের বাংলা বহন করবে না। প্রাণের বাংলার কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না তবে সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করতে পারবেন । লেখা সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ অথবা নতুন লেখা পাঠাতে যোগাযোগ করুন amar@pranerbangla.com