ভিন্ন ভিন্ন স্বাদে ইলিশ

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আঞ্জুমান আরা রোজী

বাজারে ইলিশে সয়লাব। দামও বেশ কম এখন। অনেকে ফ্রিজে দীর্ঘদিন খাবার জন্য মাছ সংরক্ষণ করেও রাখছেন। পাঠকের কথা চিন্তা করেই মজার মাছ ইলিশের ভিন্ন স্বাদের চারটি রেসিপি দিয়েছেন রন্ধনশিল্পী আঞ্জুমান আরা রোজী।

ইলিশের আনারসি দোপেঁয়াজি

ইলিশের আনারসি দোপেঁয়াজা

উপকরণ – ইলিশ ১ টা, আনারসের জুস ২ কাপ,পেঁয়াজ কুঁচি ২ কাপ, আদা বাটা ১ চা চামচ, হলুদের গুঁড়া ১ চা চামচ, শুকনা মরিচ গুঁড়া ১ টেবিল চামচ, কাঁচা মরিচ বাটা ১ টেবিল চামচ, সরিষার তেল ১ কাপ, লবণ স্বাদমত।

প্রণালী: ইলিশ মাছে হলুদ লবণ মাখিয়ে রাখতে হবে। প্যানে তেল গরম করে পেঁয়াজ কুঁচি, আদা বাটা, শুকনা কাঁচামরিচের গুঁড়া, কাঁচা মরিচ বাটা এবং লবণ দিয়ে একটু ভুনে নিয়ে অর্ধেক আনারসের জুস দিয়ে মাছগুলো দিয়ে দিতে হবে। ঝোল শুকিয়ে এলে বাকি আনারসের জুসটুকু দিয়ে মাঝারি আঁচে রেখে দিতে হবে। মাখা মাখা হয়ে এলে চুলা বন্ধ করতে হবে।

দমদার ইলিশ

দমদার ইলিশ

উপকরণ – ইলিশ ১ টা, নারকেল বাটা ১.৫ কাপ, টক দই ১ টেবিল চামচ, সাদা সরিষা বাটা ১ টেবিল চামচ, পেঁয়াজ বাটা ২ টেবিল চামচ, আদা বাটা আধা চা চামচ, কাজুবাদাম বাটা ১ টেবিল চামচ, শুকনা মরিচ গুঁড়া ১ টেবিল চামচ, কাঁচা মরিচ বাটা ১ টেবিল চামচ, আস্ত কাঁচা মরিচ ২/৩ টা, সরিষার তেল ১ কাপ, লবণ স্বাদমত।

প্রণালী: ইলিশ মাছের সঙ্গে আস্ত কাঁচা মরিচ বাদে বাকি সব উপকরণ দিয়ে মাখিয়ে সামান্য পানি দিয়ে প্যান চুলায় বসিয়ে হালকা আঁচে ঢেকে রাখতে হবে। মাছ সেদ্ধ হয়ে এলে এবং মশলা মাছের গায়ে লেগে আসলে কাঁচা মরিচ ফালি এবং সামান্য সরিষা তেল ছড়িয়ে দিয়ে চুলা বন্ধ করতে হবে।

ইলিশের চিজি কাটলেট

 

ইলিশের চিজি কাটলেট

উপকরণ – ইলিশ ১ টা, সেদ্ধ আলু ৪ টা, গ্রেট করা মোজরেলা চিজ ১ কাপ, ডিম ২ টা, রসুন বাটা ১ চা চামচ, কাঁচামরিচ বাটা ২ টেবিল চামচ, পেঁয়াজ বেরেস্তা ১ কাপ, হলুদ ১ চা চামচ, ব্রেড ক্রাম্ব ১ কাপ  লবণ স্বাদমত, তেল ভাজার জন্য।

প্রণালী: পানি গরম করে এতে হলুদ লবণ দিয়ে মাছ সেদ্ধ করে নিতে হবে। সেদ্ধ মাছের কাঁটা বেছে সেদ্ধ আলু চটকে মাছের সঙ্গে মেখে নিতে হবে। এবার এতে কাঁচা মরিচ বাটা, পেঁয়াজ বেরেস্তা এবং রসুন বাটা মিশিয়ে নিতে হবে। মিশ্রণটি ছোট ছোট টুকরো করে নিতে হবে। এবার টুকরো গুলোর ভেতরে গ্রেট করা মোজরেলা চিজ দিয়ে মুখ বন্ধ করে কাটলেটের আকার দিয়ে ডিমে চুবিয়ে ব্রেড ক্রাম্বে গড়িয়ে ডুবো তেলে ভেজে তুলতে হবে। সসের সঙ্গে গরম গরম পরিবেশন করতে হবে ইলিশের চিজি কাটলেট।

নারকেলি রাজমা ইলিশ

নারকেলি রাজমা ইলিশ

উপকরণ – ইলিশ ১ টা, রাজমা ২ কাপ, নারকেল বাটা ১ কাপ , নারকেল কোড়ানো আধা কাপ,

টক দই ১ টেবিল চামচ, পেঁয়াজ বাটা ২ টেবিল চামচ, আদা বাটা আধা চা চামচ, শুকনা মরিচ গুঁড়া ১ টেবিল চামচ, কাঁচা মরিচ বাটা ১ টেবিল চামচ, আস্ত কাঁচা মরিচ ২/৩ টা, সরিষার তেল ১ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমত

প্রণালী: রাজমা এক রাত ভিজিয়ে রেখে সেদ্ধ করে নিতে হবে। ইলিশ মাছের সঙ্গে আস্ত কাঁচা মরিচ বাদে বাকি সব উপকরণ দিয়ে মাখিয়ে সামান্য পানি দিয়ে প্যান চুলায় বসিয়ে মাঝারি আঁচে ঢেকে রাখতে হবে। মাছ সেদ্ধ হয়ে এলে এবং মশলা মাছের গায়ে লেগে আসলে কাঁচা মরিচ ফালি দিয়ে চুলা বন্ধ করতে হবে।ডিশে পছন্দ মত সাজিয়ে সাদা ভাত, পোলাও অথবা খিচুরির সঙ্গে পরিবেশন করতে হবে ভিন্ন স্বাদের নারকেলি রাজমা ইলিশ।

পুনশ্চ: রাজমা যদি ক্যানের প্রসেস করা হয় তবে ইলিশের সঙ্গে চুলায় বসানোর আগে না দিয়ে ইলিশ অর্ধ সেদ্ধ হয়ে আসার পর দিতে হবে, তা না হলে রাজমা গলে অথবা ভেঙে যেতে পারে।

 

প্রাণের বাংলায় প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। লেখা সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় প্রাণের বাংলা বহন করবে না। প্রাণের বাংলার কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না তবে সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করতে পারবেন । লেখা সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ অথবা নতুন লেখা পাঠাতে যোগাযোগ করুন amar@pranerbangla.com