ডুব বিতর্ক…

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ফেইসবুক এর গরম আড্ডা চালাতে পারেন প্রাণের বাংলার পাতায়। আমারা তো চাই আপনারা সকাল সন্ধ্যা তুমুল তর্কে ভরিয়ে তুলুন আমাদের ফেইসবুক বিভাগ । আমারা এই বিভাগে ফেইসবুক এ প্রকাশিত বিভিন্ন আলোচিত পোস্ট শেয়ার করবো । আপানারাও সরাসরি লিখতে পারেন এই বিভাগে । প্রকাশ করতে পারেন আপনাদের তীব্র প্রতিক্রিয়া।

শিবু কুমার শীল

হুমায়ূন আহমেদের জীবন ও কীর্তি অথবা তার জীবনাশ্রিত কোনো গল্প নিয়ে কেউ যদি সিনেমা বানায়, গল্প লিখে, নাটক নির্মাণ করে তার জন্য অনুমতি লাগবে কেন? এখানে অনুমতির কি আছে? বরং কাজটি প্রচার হবার পর হুমায়ূন আহমেদের পরিবারের লোকজন কাজটির ভেতর কোন অসঙ্গতি খুঁজে পেলে তা লিখে জানাবেন অথবা তারা অন্য কোনো উপায়ে প্রতিক্রিয়া জানাবেন এটাইতো স্বাভাবিক। কিন্তু তা না করে বরং একজন ফিল্ম মেকারের সিনেমার বিষয় নিয়ে আগে থেকেই কানাঘুষা, নানা রকম আপত্তি তোলা এমনকি ফিল্ম মেকারকে আগে থেকেই ‘দুরভিসন্ধির আছে’ বলে মন্তব্য করা এইসব কোন সভ্যতার মধ্যে পড়ে না। কেবল একটি কথা বলতে চাই হুমায়ূন আহমেদ তাঁর মৃত্যুর আগে বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে একটি উপন্যাস লিখেছিলেন। এবং এই উপন্যাস নানা রকম বিতর্কের জন্ম দিয়েছিল। তারপরও কেউ বলেনি উপন্যাসটি নিষিদ্ধ করা হোক বা কেউ বলেনি এটা লেখার আগে তিনি কি বঙ্গবন্ধুর পরিবারের কারো কাছ থেকে অনুমতি নিয়েছিলেন কিনা? তাহলে? বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে যদি যে কেউ উপন্যাস লিখতে পারে তাহলে একজন জনপ্রিয় উপন্যাসিককে নিয়ে কেন সিনেমা বানানো যাবে না। আর বিতর্ক? হুমায়ূন আহমেদ খোদ তাঁর জীবদ্দশায় যা করে গেছেন তা বিতর্কের জন্ম দিয়েছিল একথা সকলেই জানেন। এখন সেই বিতর্ক বা ঘটনাকে আমরা অস্বীকার করতে পারি? এ কোন অবিচার। ‘ডুব’ সিনেমা নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্তকে নিন্দা জানাই।

প্রাণের বাংলায় প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। লেখা সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় প্রাণের বাংলা বহন করবে না। প্রাণের বাংলার কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না তবে সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করতে পারবেন । লেখা সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ অথবা নতুন লেখা পাঠাতে যোগাযোগ করুন amar@pranerbangla.com