ওয়েব বেইজড বাংলা পত্রিকা গুলোকে বেশি দায়িত্বশীল হতে হবে – কাজী জহিরুল ইসলাম

  •  
  •  
  •  
  •  
  • 0
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

কবি কাজী জহিরুল ইসলাম। লেখালেখির শুরু তার ছোটবেলা থেকেই। থাকেন যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে। এবছরও ২১শের বইমেলাতে এসেছে তার বেশ কয়েকটি বই। ১৯৮৫ সালে দৈনিক আজাদের সাহিত্য পাতায় তার প্রথম কবিতা ছাপা হয়। আর সেটিই ছিলো তার  আনুষ্ঠানিক শুরু। তবে সেসময়কার অনেক লেখাই আর পরে সংরক্ষিত হয়নি।তার লেখালেখি নিয়েই কথা হয় প্রাণের বাংলার সঙ্গে । বলেন নিজের লেখা নিয়েই অনেক কথা।

•    প্রথম কবিতার বই কবে বের হয়েছিলো? নাম কি?
*  প্রথম কবিতার বই বের হয় ১৯৯৮ সালে, বইটির নাম “পুরুষ পৃথিবী”।

•     দীর্ঘদিন ধরে তো  বাইরে আছেন, এতে লেখালেখিতে  কোন সমস্যা হয় কি?
*  প্রথম দিকে খুব সমস্যা হতো। যোগাযোগ ব্যবস্থা যখন হাতে-লেখা চিঠির মধ্যেই সীমাবদ্ধ ছিল। আমি যখন দেশের বাইরে আসি তখন ইমেইলের যুগ শুরু হয়ে গেলেও আমাদের পত্র পত্রিকাগুলো তখনো ইমেইল বান্ধব হয়ে ওঠেনি। আর সবচেয়ে বেশি সমস্যা যেটা হতো তা হলো বাংলা বইয়ের অপ্রতুলতা। আমি এমন এমন জায়গায় থেকেছি, কাজ করেছি, যেখানে বাংলা বইতো দূরের কথা, একজন বাঙালী খুঁজে পেতেই পাড়ি দিতে হতো অনেক মাইল পথ। প্রথম কয়েক বছরেতো বাংলা ভাষাই ভুলতে বসেছিলাম। ২০০০ সালের এপ্রিলে যাই কসোভোতে। এই প্রভিন্সটির এমন প্রত্যন্ত অঞ্চলে আমি কাজ করেছি যেখানে সম্ভবত আমিই প্রথম বাঙালী, এর আগে আর কোনো বাঙালীর পা-ই পড়েনি। এখন সেই সমস্যা অনেক কমে গেছে। প্রচুর ই-বুক আছে, অনলাইনে বাংলাপিডিয়া, উইকিপিডিয়া আছে, প্রচুর ওয়েব বেইজড পত্র-পত্রিকা আছে। তবে একটি কথা আমি বলবো, ওয়েব বেইজড বাংলা পত্র- পত্রিকা এবং ওয়েবসাইটগুলোকে আরো বেশি দায়িত্বশীল হতে হবে, বস্তুনিষ্ঠ হতে হবে। প্রচুর ভুল তথ্য থাকে। কবিতার ভুলভাবে প্রকাশ করা হয়। গল্পের লাইন থাকে না। তাই এগুলো রেফারেন্স হিশেবে ব্যবহার করা কঠিন হয়ে পড়ে।

•     কি বিষয়ে আপনি লিখতে বেশী পছন্দ করেন?
* মানবতা আমার চিন্তার কেন্দ্র। সুফিবাদে মানবতা এবং আধ্যাত্মিকতার একটি চমৎকার সমন্বয় ঘটেছে। সম্ভবত এ কারণেই সুফিজম আমাকে খুব টানে। আমার দেহকাব্যগুলো সুফিবাদি কবিতাই আমি বলবো। ভ্রমণ লিখেছি প্রচুর, হয়ত আরো লিখবো। তবে এই ভ্রমণ গল্প গুলোতে আমি নানান দেশের বেস্ট প্র্যাকটিসগুলো তুলে আনতে চাই। যাতে এগুলো পড়ে বাংলাদেশের মানুষ দেশের জন্য এবং নিজের জন্য ভাল কাজ করতে উদ্বুদ্ধ হয়। আমি বিশ্বাস করি জীবনের জন্য শিল্প। তবে শিল্পের দায়ও আমি মেটাতে চাই।

•    এ বছর ২১শের মেলাতে কয়টি বই বেরুলো?
* এবার আমার ৭টি বই এসেছে। রূপ প্রকাশন এনেছে ভ্রমণ সমগ্র প্রথম ও দ্বিতীয় খণ্ড এবং ইতিহাস ভিত্তিক গ্রন্থ “শেকড়ের খোঁজ”। অনিন্দ্য প্রকাশ এনেছে প্রবন্ধের বই “অসীম শূন্যতে তিষ্ঠ”। অনন্যা এনেছে কবিতার বই “সূর্যাস্তের পরের ফিরিস্তি” এবং সময় এনেছে কবিতার বই “রাস্তাটি ক্রমশ সরু হয়ে যাচ্ছে”। এ ছাড়া ইত্যাদি গ্রন্থ প্রকাশ এনেছে আমার অনুবাদ কাব্যগ্রন্থ “জালালুদ্দিন রুমির কবিতা”।

•    লেখার জন্য সাধারণত কোন সময়টা বেশী পছন্দ করেন?
* সব সময়ই আমি অবসর পেলে লিখতে পারি। একসময় সকালে লিখতে খুব ভালো লাগত। এখন যখন সময় পাই তখনই লিখি।
•    আজ ১০ ফেবরুয়ারী । আজ আপনার জন্মদিন। প্রাণের বাংলার পক্ষ থেকে আপনাকে জানাই শুভেচ্ছা্।
* ধন্যবাদ আপনাদের সবাইকে।

ছবি: লেখক

প্রাণের বাংলায় প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। লেখা সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় প্রাণের বাংলা বহন করবে না। প্রাণের বাংলার কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না তবে সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করতে পারবেন । লেখা সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ অথবা নতুন লেখা পাঠাতে যোগাযোগ করুন amar@pranerbangla.com